সস্তায়.কম আপনার প্রিয় অনলাইন শপ

অযোধ্যায় করোনার হানা, আক্রান্ত রাম মন্দিরের পুরোহিত

আন্তর্জাতিক

নিউজ ডেস্ক ২ | ০১ অগাস্ট ২০২০, শনিবার | সর্বশেষ আপডেট: ০১:০৫ অপরাহ্ন

অযোধ্যায় রাম মন্দিরের ভূমিপূজার আগেই সেখানে হানা দিয়েছে মহামারি করোনা। যে পুরোহিতরা ভূমিপূজার অনুষ্ঠান পরিচালনা করবেন, তাদের মধ্যে একজন পুরোহিত করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। জার্মান সংবাদমাধ্যম ডয়েচে ভেলের এক অনলাইন প্রতিবেদনে এই খবর জানানো হয়েছে।

রাম মন্দিরের ভূমিপূজার চূড়ান্ত অনুষ্ঠান হবে ৫ আগস্ট। ভূমিপূজার সূচনা অবশ্য হয়ে যাবে ৩ আগস্ট থেকে। এরপর ৪ আগস্ট হবে রামের পূজা। কিন্তু সেখানেই করোনার হানা। এই পূজা করার কথা বারাণসী ও অযোধ্যার পুরোহিতদের। অনুষ্ঠানের আগে সকলের করোনা করোনা পরীক্ষা হচ্ছে।

গণহারে সেই করোনা পরীক্ষাতেই ধরা পড়েছে, রামলালার মন্দিরের প্রধান পুরোহিত সত্যেন্দ্র দাসের সহকারী পুরোহিত প্রদীপ দাস করোনায় আক্রান্ত। সঙ্গে সঙ্গে তাকে আইসোলেশনে পাঠানো হয়েছে। শুধু তিনিই নন, করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন নিরাপত্তায় দায়িত্বে থাকা ১৫ জন পুলিশ কর্মী।

অনুষ্ঠানের আগে প্রধান পুরোহিতের সহকারী প্রদীপ দাসের করোনা শনাক্ত হওয়ায় রীতিমতো আলোড়ন শুরু হয়েছে অযোধ্যায়। ছয় দিন আগে প্রস্তুতি খতিয়ে দেখতে উত্তরপ্রদেশের বিজেপিদলীয় মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ অযোধ্যায় গিয়েছিলেন। তিনি রামলালার পূজা দেন। সেখানেও পুরোহিত প্রদীপ ছিলেন।

তবে স্থানীয় প্রশাসন জানিয়েছে, প্রদীপের সঙ্গে থাকা বাকিদের করোনা পরীক্ষার রিপোর্ট পাওয়া গেছে। তাদের কেউই করোনায় আক্রান্ত হননি। তবে প্রশাসন কোনো ঝুঁকি নিচ্ছে না। যেহেতু প্রধানমন্ত্রী থেকে শুরু করে অনেক ভিভিআইপি থাকবেন, তাই প্রয়োজনে ফের করোনা পরীক্ষা করে দেখা হতে পারে।

নির্দেশনা মানলে মোদিও যোগ দিতে পারেন না
করোনা নিয়ে ভারতের কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় একটা স্ট্যান্ডার্ড অপারেটিং প্রসিডিওর (এসওপি) ঘোষণা করেছে। সেই এসওপি-তে অনুযায়ী, ‘৬৫ বছরের বেশি বয়সী, যাদের অন্য গুরুতর রোগ আছে, গর্ভবতী নারী ও ১০ বছরের কম বয়সী শিশুদের বাড়িতে থাকার পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে।’

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বয়স ৬৯ বছর। লালকৃষ্ণ আধভানি কয়েক মাস পরে ৯৩-এ পা দেবেন। মুরলী মনোহর জোশির ৮৬, আরএসএস প্রধান মোহন ভগবতের ৬৯, বিজেপি নেতা ও সাবেক মুখ্যমন্ত্রী কল্যাণ সিং এর ৮৮, আরএসএস নেতা ভাইয়াজি জোশীর ৭৩ বছর বয়স।

কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের করোনা সংক্রান্ত এসওপি নির্দেশনা অনুযায়ী, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিসহ উল্লিখিত সবার বাড়ি থেকে বের হওয়া আর রামমন্দিরের ভূমিপূজার অনুষ্ঠানে যাওয়া উচিত নয়। এছাড়া করোনার মধ্যে রামমন্দিরের ভূমিপূজা নিয়ে দেশটির রাজনৈতিক মহলে ইতোমধ্যেই প্রশ্ন উঠেছে।

প্রবীণ রাজনীতিক শারদ পাওয়ার বলেছেন, করোনার সংক্রমণ রোধ করাই অগ্রাধিকার হওয়া উচিত ছিল। এই অবস্থায় সরকারের জারি করা এসওপি বিড়ম্বনায় ফেলেছে বিজেপি শীর্ষ নেতৃত্বকে।

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

  • *
  • এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আরও খবর